Post has attachment
Photo

Post has attachment
Photo

Post has attachment
#তবুও_জীবন

জীবন যখন সুর আর ছন্দের মধ্যে দিয়ে অতিবাহিত হতে চেয়েছিল---- তখনই কোন না কোন এক বাধা এসে দাঁড়িয়েছে...
যখনই জীবন খুঁজে পেতে চেয়েছিল একটা আশ্রয়---তখনি কে যেন ঘাড় ধাক্কা দিয়ে বের করে দিয়েছিল।
বলেছে "এখানে নয় অন্য কোথাও
দেখ"।
জীবন যখন ধীর পায়ে চলছিল ----তখনি পিছন থেকে কিছু একটা সজোরে ধাক্কা দিয়ে ছিন্ন বিছিন্ন করে দিয়ে গেলো।
জীবন যখন একটু একটু করে স্বপ্ন
দেখছিলো ---তখনি কোন এক অজানা ভয়ে সেই স্বপ্নের অপমৃত্যু ঘটলো।
আমি আর আমার জীবন দুটোই যেন কোন দ্রুত গতির গাড়ীর চাকা।
প্রতি নিয়তই পিষ্ট হচ্ছি কোন না কোন ভাবে..।।।😰😰😰😰😰

#লিনামুন
Photo

Post has attachment
"আমরা মোটামুটি যে যার নিজের মতো বেঁচে থাকতে চাই । কোথায় কী হচ্ছে তা নিয়ে সমালোচনা করতে খুব রাজি আছি, কিন্তু আঁচ এড়িয়ে"

____________সমরেশ মজুমদার
Photo

Post has attachment
Photo

Post has attachment
জানিনা কি অপরাধ করেছি,,,,
আমি সারারাত শুধু,,,,,,,

Post has attachment
মৃত্যুর পরে কি করলাম,কি হলো।তার চাইতে বেশি ইম্পরট্যান্ট হলো,
মৃত্যুর আগে বা বেঁচে থেকে কি করেছি।

মরার পর, মর দেহের ছবি প্রচার হওয়া এর চাইতে বেশি গুনাহ ,বেঁচে থেকে যে সকল ছবি শেয়ার করা হচ্ছে বা আপলোড দেয়া হয়।
মরার পর একাউন্ট ডিলিটের জন্যে সবাই ব্যস্ত না হয়ে,জীবনটা গুছিয়ে নিলে বরং বেশি কল্যাণ হবে।
পরকালে আমাদের হিসাব নিকাশ হবে বেঁচে থেকে আমরা কি করে গেছি এটা নিয়ে।
আর পাপের পথ গুলো মরার পরে বন্ধ করার চাইতে আগেই বন্ধ করার প্রয়োজন।
পাপ কামিয়ে নিয়ে এই দুনিয়া ছেড়ে চলে গেলে,
তবে আর কি লাভ নিজের চিন্হ মুছে ফেলে?
পাপ যাতে আগেও না হয়,পরেও যাতে এর চিন্হ না থাকে সেই দিকেই খেয়াল রাখতে হবে।
*আল্লাহকে ভয় করো বেঁচে থাকতেই,শুধু মরে গিয়ে নয়।
collected
Photo

Post has shared content

Post has attachment
যে ভাবেই তুমি সকাল দেখো
সূর্য কিন্তু একটাই
যত ভাগে ভাগ করোনা প্রেম
হৃদয় কিন্তু একটাই ।।
অনেকেই বলে মরন অনেক
জীবন সে নাকি একটাই
প্রতিভার প্রেমে নতুন জনম
জীবন কি করে একটাই
যত ভাগে ভাগ করোনা প্রেম
হৃদয় কিন্তু একটাই ।।
অনেকেই বলে অনেক কথা
কথার কথাতো সব টাই
কথার বাঁধনে হৃদয় ফেরার
সঠিক কথা একটাই
যত ভাগে ভাগ করোনা প্রেম
হৃদয় কিন্তু একটাই ।।
Photo

Post has attachment
"বোকা মেয়ের ডাইরি ""
--------------------------------------------------------------

আমার মতের সাথে অনেকেরই অমিল আছে,কারন হতে পারে আমি কিছুটা বিতর্কিত কথা বলি অনেক বিষয়াবলী নিয়ে।
কিন্তু আসলে কি সবই অবান্তর বলি?
কিছুদিন আগে আমার পরিচিত একজন বললেন উনার স্বামী উনাকে আগের মতন নেই বলে,আগের মতন ভালো বাসেন না,এখানে বলে রাখা ভালো অই আপার বয়স প্রায় ৪৪ বছর, আমি জানতে চাইলাম, আপনাদের বিয়ের বয়স কত?
বললেন "২৩ বছর "
আমি বললাম "২৩ বছর পরেও আপনার জামাই আপনাকে ২১ বছরের যুবতীই আশা করছেন,আপনার জামাই কি এখনো সেই আগের মতন আছেন?নাই,তবে তিনি কি করে এমন অবাধ্য আশা করতে পারেন,অবাক হয়ে যাই, উনিও কেমন উঠে পড়ে লেগেছেন নিজেকে পরিপাটি করে স্লিম,এন্ড সেই আগের জায়গায় নেয়ার বৃথা প্রয়াস!
কষ্ট লাগে যখন এগুলি দেখি,কি বোকা মেয়ে আমরা, একবার ভাবিনা ভালবাসতে যোগ্যতা লাগেনা,নিজেকে রুপে,গুনে পরিপুষ্ট করে আমিতো আমার আমিত্বকে বিসর্জন দিচ্ছি,যে আমায় ভালবাসবে সে এমনি বাসবে,ভালবাসতে আদৌ কোন কারন লাগে কি?
কিংবা বহিরঙ্গ গঠন, জানিনা।
তবে আমার কথা হল,যদি নিজেকে এতো অসাধারণ করেই তুলতে হয় কারো জন্য, তবেত সে অতুলনীয়ার জন্য যেকেউ ভালবাসার থাকতে পারে,,
নিজের দিকে কেন ঘুরে তাকাচ্ছি না?
আসলে অন্যর ইচ্ছাকে প্রাধান্য দিতে গিয়ে নিজেকে অসম্মান করছি,,
যে সময় এই অপ্রযোজ্য চিন্তায় নষ্ট করছি আমরা সেই সময় যদি নিজের ইচ্ছায় নিবিষ্ট করি তবে বোধ করি অন্তত নিজেকে একবার বুঝতে পারবো।
আর এভাবে কেন ভাবতে পারিনা,যে আমায় ভালবাসবে সে আমি না থাকলেও আমার ছায়ারাগে মিশে রবে,,
ভালবাসা কি অতিতুচ্ছ,যে মেকাপের সাথে সাথে উঠে যাবে?
ভালবাসা কি এতোটাই ফিকে যে বৃস্টি এলেই ধুয়ে যাবে?
ভালবাসা কি এতোই ঠুনকো, বাতাসের সাথেই উপড়ে পড়বে?
ভালবাসা কি প্রতিরোধ বিহিন, যে মোটা চিকনের সাথেসাথেই রোগে জর্জরিত হয়ে যাবে?
আমি বুঝিনা রঙ মেখে সঙ সেজে কেনো নিজেকে উপস্থাপন করতে হবে?


চলবে--------


Photo
Wait while more posts are being loaded